বাংলাদেশ শিক্ষা পর্যবেক্ষক সোসাইটির রোকেয়া স্মৃতি পদক প্রদান

বেগম রোকেয়া

বেগম রোকেয়া দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ শিক্ষা পর্যবেক্ষক সোসাইটি আয়োজিত -“নারী নেতৃত্ব ও বিশ্বায়নে বেগম রোকেয়ার অবদান” শীর্ষক আলোচনা সভা । ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে রোকেয়া স্মৃতি পদক ২০২০ প্রদান করা হয়।

পদক প্রদানের মাধ্যমে সম্মানিত করা হয়েছে যাদের তাঁরা হলেন বিশিষ্ট সমাজ সেবী ও বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের ঢাকা মহানগর উত্তর ও পশ্চিম আঞ্চলিক শাখার নির্বাহী সভাপতি ও বিশেষ অতিথি মোছাঃ উম্মে জান্নাতুল ফেরদৌস (শাপলা) , বিশিষ্ট সমাজ সেবক প্রধান আলোচক লায়ন গনি মিয়া বাবুল, ও ইডেনবার্গ স্কুলের অধ্যক্ষ রোকেয়া রুমি।

বাঙালী নারী জাগরণের পথিকৃৎ বেগম রোকেয়ার জীবনীর উপর বিশেষ সমীক্ষা মূলক প্রবন্ধ পাঠ করেন সোসাইটির সভাপতি ও
অনুষ্ঠানের সম্মানিত সভাপতি অধ্যক্ষ এম শরীফুল ইসলাম।

বক্তব্য রাখেন প্রধান অতিথি বাংলাদেশ সরকারের অর্থ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব জনাব পীরজাদা শহীদুল হারুন।

বিশ্বায়নে ও নারী নেতৃত্বে বেগম রোকেয়া ও খ্যতনামা সকল নারীর ভুমিকার উপর বিস্তারিত আলোচনায় বেগম রোকেয়ার অবদান উল্লেখ করে বক্তারা বলেন, এই মহীয়সী ও বিদূষী বাঙালি নারী শুধুমাত্র অনুসরণীয় নন, অনুকরণীয় বটে। বেগম রোকেয়ার দেশের নারীরা তাদের দেশের ভাবমূর্তি,সম্মান, অধিকার রক্ষায় ও উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে পুরুষের পাশাপাশি সমতা ও মর্যাদার সাথে এগিয়ে চলেছে।

প্রধান আলোচক বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের সভাপতি লায়ন গনি মিয়া বাবুল বেগম রোকেয়ার অবদান বিশ্বব্যাপী গবেষণা করা ও ছড়িয়ে দেয়ার জন্য চ্যানেলে লাইভে গুরুত্বের সাথে বক্তব্য দেন।

দেশের উন্নয়নের রোল মডেলের অগ্রদূত ও ফোর্সের বিবেচিত ক্ষমতাধর নারীনেত্রী গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন ও কৃতজ্ঞতা জানিয়ে দেশের মান- উন্নয়নে নারীর সংশ্লিষ্টতা,সমতা ও সম্পর্কের প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে উম্মে জান্নাতুল ফেরদৌস শাপলা বলেন, নারীর অধিকার রক্ষায় ও উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে হলে নারী ও পুরুষের সহবস্হান‌ ও সম্পর্ক হোক প্রকৃতির মত। এছাড়াও অন্যান্য বক্তাগণ‌ বিশদ বক্তব্যের মধ্যে দিয়ে বেগম রোকেয়ার জীবন-সংগ্রাম ও কর্ম ত‌ৎপরতাকে ত্বরান্বিত করতে আদর্শে অনুপ্রাণিত‌ও উজ্জীবিত হ‌য়ে এগিয়ে যাওয়ার কথা বলেছেন।

পদক প্রদান করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি জুড়ি বোর্ডের সভাপতি ও বাংলাদেশ সরকারের অর্থ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব জনাব পীরজাদা শহীদুল হারুন‌ ও শিক্ষা পর্যবেক্ষণ সোসাইটির সম্মানিত সভাপতি জনাব অধ্যক্ষ এম শরীফুল ইসলাম।

Spread the love

নিউজ ডেস্ক

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Next Post

তারুণ্যের চোখে বিজয়ের প্রাপ্তি-অপ্রাপ্তির অর্ধশত

মঙ্গল ডিসে ১৫ , ২০২০
ইতিহাসের শত বছরের শোষিত জাতির নাম বাঙালি জাতি৷ যুগে যুগে নানা শাসকগোষ্ঠী দ্বারা শোষণের পর ১৯৭১ সালে ৯ মাসের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধে পাকিস্তানি সামরিক বাহিনীকে পরাজিত করে বাঙালির নবজীবনের সূচনা হয়। আমরা পাই লাল সবুজের এই পতাকা। আর এই স্বাধীন দেশ। আমাদের স্বাধীন বাংলাদেশ। বিশ্বের বুকে আবির্ভূত হয় একটি জাতি-রাষ্ট্র বাংলাদেশ। […]